1. ahekram2006@gmail.com : ah ekram : ah ekram
  2. asadmd7195@gmail.com : JB Admin : JB Admin
  3. janatarbartabd@gmail.com : jb editor : jb editor
আজ জয়া আহসানের জন্মদিন - দৈনিক জনতার বার্তা
সোমবার, ০৮ অগাস্ট ২০২২, ০১:৪০ অপরাহ্ন

আজ জয়া আহসানের জন্মদিন

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • আপডেটের সময় : শুক্রবার, ১ জুলাই, ২০২২

বিনোদন ডেস্কঃ

দুই বাংলার জনপ্রিয় অভিনেত্রী জয়া আহসান। কারো কারো কাছে তিনি অনিন্দ্য সুন্দরী তা কারো কারো কাছে চিরযৌবনা। বয়স নিয়ে না ভেবে কাজকেই গুরুত্ব দিয়ে এগিয়ে চলছেন সমানতালে।

অভিনয়কে যিনি ধারণ করেছেন প্রতিটি শিরা-উপশিরায়, যেন অভিনয়ের জীবন্ত এক দেবী জয়া সেই দেবী জয়া আহসানের আজ জন্মদিন। বিশেষ এ দিনটিতে অনুরাগীদের ভালোবাসায় সিক্ত হচ্ছেন তিনি।

১৯৮৩ সালের এ দিনেই গোপালগঞ্জ জেলায় জন্মগ্রহণ করেন জয়া আহসান। নব্বইয়ের দশকে মডেলিংয়ের মাধ্যমে শোবিজে পথচলা শুরু। এরপর ছোট পর্দা থেকে বড় পর্দায় নিজের অভিনয়গুণে দর্শক হৃদয়ে জায়গা করে নেন তিনি।

ছোটবেলা থেকে নাচ-গানের প্রতি আকৃষ্ট ছিলেন জয়া। পড়াশোনার পাশাপাশি তিনি ছবি আঁকাও শিখেছিলেন। জয়া আহসানের ক্যারিয়ার শুরু হয় ছোট পর্দা দিয়ে। তিনি বহু নাটক ও টেলিফিল্মে অভিনয় করেছেন। মডেল হয়েছেন অনেক বিজ্ঞাপনের।

গুণী এই অভিনেত্রীর চলচ্চিত্রে অভিষেক হয় ২০০৪ সালে মোস্তফা সরয়ার ফারুকী পরিচালিত ‘ব্যাচেলর’ সিনেমা দিয়ে। জয়া বরাবরই সময় নিয়ে সিনেমা করেছেন। যার ফলে তার একটি সিনেমা থেকে অন্য সিনেমার মধ্যকার সময় বেশ লম্বা। ‘ব্যাচেলর’ সিনেমার পর ছয় বছর বিরতি দিয়ে দ্বিতীয় সিনেমায় কাজ করেন তিনি। সেটি ছিল নুরুল আলম আতিক পরিচালিত ‘ডুবসাঁতার’।

প্রথম দুটি সিনেমায় জয়া তার অভিনয় দক্ষতা ফুটিয়ে তুললেও সেভাবে জনপ্রিয়তা পাননি। ২০১১ সালে জনপ্রিয়তা আর প্রশংসা সব একসঙ্গে নিজের করে নেন জয়া। সে বছর তিনি তানিম নূর পরিচালিত ‘ফিরে এসো বেহুলা’ এবং নাসির উদ্দীন ইউসুফ বাচ্চু পরিচালিত ‘গেরিলায় অভিনয় করেন। এর মধ্যে ‘গেরিলা’ তাকে এনে দেয় দারুণ জনপ্রিয়তা। এ সিনেমার জন্য জয়া ২০১২ সালে অনুষ্ঠিত ঢাকা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে জুরিদের বিচারে শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রীর পুরস্কার অর্জন করেন।

‘গেরিলা’র পর কলকাতার নির্মাতা-প্রযোজকদেরও নজরে আসেন জয়া আহসান। সেই সুবাদে তিনি টালিউডেও কাজ শুরু করেন। ২০১২ সালে তরুণ নির্মাতা রেদওয়ান রনি পরিচালিত ‘চোরাবালি’ সিনেমায় কলকাতার ইন্দ্রনীল সেনগুপ্তের সঙ্গে অভিনয় করে কলকাতায়ও আলোচিত হন।

সাফল্যের স্বীকৃতিস্বরূপ জয়ার ঝুলিতে দেশ-বিদেশের অসংখ্য পুরস্কার জমা হয়েছে। তারমধ্যে চারবার শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রী হিসেবে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার, দুইবার শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রী বিভাগে বাচসাস পুরস্কার, মেরিল-প্রথম আলো পুরস্কার, ফিল্মফেয়ার পুরস্কার অর্জন করেন। এ ছাড়াও ‘এনেছি সূর্যের হাসি’ ধারাবাহিক নাটকে অভিনয়ের পর জয়া জাতিসংঘের নারী ও শিশু সহায়তা বিভাগের শুভেচ্ছা দূত হন।

এই পোস্টটি আপনার সামাজিক মিডিয়াতে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই বিভাগের আরও খবর
© ২০২০ সমস্ত অধিকার সংরক্ষিত | দৈনিক জনতার বার্তা বিডি পরিবার
কারিগরি সহায়তায় রাফিউল ইসলাম