1. ahekram2006@gmail.com : ah ekram : ah ekram
  2. asadmd7195@gmail.com : JB Admin : JB Admin
  3. janatarbartabd@gmail.com : jb editor : jb editor
কুতুবদিয়ায় আবারো পূর্নিমার জোয়ারের পানিতে প্লাবিত গ্রাম! জনতার বার্তা - দৈনিক জনতার বার্তা
বৃহস্পতিবার, ৩০ জুন ২০২২, ০২:০৮ পূর্বাহ্ন

কুতুবদিয়ায় আবারো পূর্নিমার জোয়ারের পানিতে প্লাবিত গ্রাম! জনতার বার্তা

মোহাম্মদ সাইফুল ইসলাম, কক্সবাজার জেলা প্রতিনিধিঃ
  • আপডেটের সময় : শনিবার, ২৪ জুলাই, ২০২১

মোহাম্মদ সাইফুল ইসলাম, কক্সবাজার জেলা প্রতিনিধিঃ

গভীর সমুদ্রে নিম্নচাপের প্রভাব ও পুর্নিমার স্বাভাবিক জোয়ারের পানিতে সয়লাব কুতুবদিয়া উপজেলার বেশ কিছু গ্রাম। পানিতে প্লাবিত হয়েছে আলী আকবর ডেইল ইউনিয়নের দর্শনীয় স্থান বায়ুবিদ্যুৎ কেন্দ্র, কাজির পাড়া, তেলি পাড়া, হায়দার পাড়া, কিরণ পাড়া এবং উত্তর ধুরুং ইউনিয়নের কাইছার পাড়াসহ বেশ কিছু গ্রাম।

স্থানীয়রা জানান, ৩নং সতর্ক সংকেতের প্রচার আছে। যে কারণে সাগর উত্তাল। তার ওপর পুর্নিমার জোয়ার। পানির উচ্চতা বৃদ্ধি পেয়েছে।

শনিবার (২৪জুলাই) দুপুর ১২ টা থেকে জোয়ারের পানি লোকালয়ে অনায়াসে প্রবেশ করছে। বিগত জোয়ারের সময় বেড়িবাঁধ ভেঙে লোকালয়ের সাথে মিশে যাওয়ায় এইসব গ্রামগুলোতে জোয়ার-ভাটার এমন দৃশ্য নিয়মিত চোখে পড়ছে।

এসময় দেখা গেছে, স্থানীয় মাছ চাষিরা বড় জাল দিয়ে পুকুর ঘিরে রেখে মাছ রক্ষার আপ্রাণ চেষ্টা করছেন। এদিকে সাগরের করে বহু ঘরবাড়ীসহ রোপা আউশ, রাস্তাঘাট ও পুকুর নূনা পানিতে সয়লাব হয়ে গেছে। স্থানীয়রা বলেন, এলাকার কিছু দুষ্কৃতিকারী বেড়িবাঁধের উপর দেয়া জিও বেগ কেটে ফেলায় সহজে সামুদ্রিক জেয়ারের পানি প্রবেশ করছে।

কুতুবদিয়া প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক হাছান কুতুবী বলেন, কুতুবদিয়া দ্বীপের চারপাশে বর্তমান সরকারের সবচেয়ে বড় বরাদ্দে নির্মাণাধীন বেড়িবাঁধ নির্মাণ-সংস্কারকাজ ধীরগতির কারণে চরম নিরাপত্তাহীনতায় রয়েছে দ্বীপের প্রায় দু‘লাখ বাসিন্দা।

এ নাজুক অবস্থার জন্য ঠিকাদারকেই দোষচ্ছেন দ্বীপের মানুষ। টানা লকডাউনে কর্মহীন মানুষ দিশাহারা হয়ে পড়েছে। তার ওপর সামুদ্রিক লোনা জলে প্লাবিত পরিবার সমূহ মানবেতর জীবনযাপন করছে।

এই পোস্টটি আপনার সামাজিক মিডিয়াতে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই বিভাগের আরও খবর
© ২০২০ সমস্ত অধিকার সংরক্ষিত | দৈনিক জনতার বার্তা বিডি পরিবার
কারিগরি সহায়তায় রাফিউল ইসলাম