1. ahekram2006@gmail.com : ah ekram : ah ekram
  2. asadmd7195@gmail.com : JB Admin : JB Admin
  3. janatarbartabd@gmail.com : jb editor : jb editor
মণিরামপুর উপজেলার ১৫নং কুলটিয়া ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডের জনপ্রিয় ইউপি সদস্য বিদ্যুৎ বৈরাগী - দৈনিক জনতার বার্তা
সোমবার, ০৮ অগাস্ট ২০২২, ০১:৪৭ অপরাহ্ন

মণিরামপুর উপজেলার ১৫নং কুলটিয়া ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডের জনপ্রিয় ইউপি সদস্য বিদ্যুৎ বৈরাগী

এইচ এম বাবুল আক্তার স্টাফ রিপোর্টারঃ
  • আপডেটের সময় : সোমবার, ৬ জুন, ২০২২

এইচ এম বাবুল আক্তার স্টাফ রিপোর্টারঃ

সফল ইউপি সদস্য (মেম্বর) হওয়া একটা স্বপ্ন। কিন্তু স্বপ্নের পথে পা বাড়ালেই একের পর এক আসতে থাকে প্রতিবন্ধকতা। যে ব্যক্তি এসব প্রতিবন্ধকতা ডিঙিয়ে এগিয়ে যাবেন তিনিই হবেন সফল। আজ এমনই একজন সমাজ সেবকের কথা জানাচ্ছি- যিনি অনেক বাধা ও প্রতিবন্ধকতা ডিঙিয়ে একজন জনপ্রিয় ইউপি সদস্য (মেম্বর) হিসেবে ঠাই করে নিয়েছেন।

তিনি হলেন, মণিরামপুর উপজেলার ১৫নং কুলটিয়া ইউনিয়নের ১নং বাজে কুলটিয়া ও হাটগাছা ওয়ার্ডের জনগনের নবনির্বাচিত একজন জনপ্রিয় ইউপি সদস্য বিদ্যুৎ বৈরাগী। ইউপি সদস্যর পাশাপাশি তিনি একজন সংগীত শিল্পী । তার দক্ষতা আর মেধা দিয়ে ইতিমধ্যে সফল ইউপি সদস্য হিসেবে জনগণের কাছে সুপরিচিতি লাভ করেছেন। তাই আগামী নির্বাচনে তাকে পুনরায় ২য় বারের মত ইউপি সদস্য হিসেবে নির্বাচিত করার লক্ষে ভোটাররা জোট বেধেছে এবং তাকে নিয়ে জল্পনা কল্পনা শুরু করেছেন। তিনি ওই ওয়ার্ডে ইউপি সদস্য হিসেবে নির্বাচিত হয়ে জনগণের সেবায় নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন। গরীব অসহায় মানুষ খুঁজে পেয়েছেন শেষ আশ্রয়স্থল।

১নং ওয়ার্ডের বাজেকুলটিয়া গ্রামের মৃণালিনী মন্ডল বলেন, নবনির্বাচিত ইউপি সদস্য বিদ্যুৎ বৈরাগী যে ভাবে সকলের পাশে থেকে কাজ করে যাচ্ছেন তাতে করে আমরা আবারো ওয়ার্ডবাসীর সমর্থনে আগামী ইউপি সদস্য পদে তাকেই নির্বাচিত করবে।

১নং ওয়ার্ডের বিভিন্ন পর্যায়ে সাধারণ জনগন জানান, বিদ্যুৎ বৈরাগী ওয়ার্ডবাসীর কাছে একজন জনপ্রিয় মানবিক ইউপি সদস্য হিসেবে মানুষের হৃদয়ে ঠাঁই করে নিয়েছেন। ওয়ার্ডবাসীর হৃদয়ে হাজার হাজার বছর বেঁচে থাকবেন। এমনটাই আশাবাদ ব্যাক্ত করেন ১নং ওয়ার্ডের সর্বস্তরের জনগন।

১নং ওয়ার্ড ইউপি সদস্য বিদ্যুৎ বৈরাগী বলেন, মণিরামপুর উপজেলা ও ১৫ নং কুলটিয়া ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডটি বছরের প্রায় ৮ মাস জলে ডুবে থাকে আমি আমার ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডকে দুর্নীতি মুক্ত ওয়ার্ড হিসাবে ঘোষনা করেছি। তাছাড়া আমার ওয়ার্ডে মহিলা ৬২ ও পুরুষ ৬৫ বছর বয়স পূর্ণ হলে আমি তাদের প্রত্যকের বাড়ি বাড়ি গিয়ে নিজ গরজে বিনা খরজে ভাতা কার্ড করে দিচ্ছি। আমি সব সময় জনগনের পাশে আছি থাকবো ।

এই পোস্টটি আপনার সামাজিক মিডিয়াতে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই বিভাগের আরও খবর
© ২০২০ সমস্ত অধিকার সংরক্ষিত | দৈনিক জনতার বার্তা বিডি পরিবার
কারিগরি সহায়তায় রাফিউল ইসলাম