1. ahekram2006@gmail.com : ah ekram : ah ekram
  2. asadmd7195@gmail.com : JB Admin : JB Admin
  3. janatarbartabd@gmail.com : jb editor : jb editor
শিক্ষকের মৃত্যু হয় না.. - দৈনিক জনতার বার্তা
বৃহস্পতিবার, ৩০ জুন ২০২২, ০৫:০২ পূর্বাহ্ন

শিক্ষকের মৃত্যু হয় না..

মোঃ সাইফুল ইসলাম, কক্সবাজার জেলা প্রতিনিধিঃ
  • আপডেটের সময় : মঙ্গলবার, ২৩ নভেম্বর, ২০২১

মোঃ সাইফুল ইসলাম, কক্সবাজার জেলা প্রতিনিধিঃ


মানুষের মৃত্যু হয় কিন্তু শিক্ষকেরও কি মৃত্যু হয়? আমার মনে হয় না। ব্যক্তির মৃত্যু হতে পারে, কিন্তু শিক্ষক বেঁচে থাকে তাঁর অগনীত ছাত্র-ছাত্রীদের মনের মাঝে, কর্মের মাঝে, কৃতিত্বের মাঝে, সফলতার মাঝে। শিক্ষক মানে মূলত জীবনের পথ প্রদর্শক, অন্ধকার পথের আলোকবর্তিকা। ঠিক সে অর্থেই স্যার ছিলেন অন্ধকারের আলোকবর্তিকাই। বলছি সদ্য প্রয়াত আজগর হোসেন স্যার’র কথা।


কিছু মৃত্যু মানুষকে বাকরুদ্ধ করে দিতে পারে সহজেই। আজকে স্যারের মৃত্যুর খবর পেয়ে নিজেকে সামলে নিতে পারছিলাম না। কষ্ট হচ্ছিল খুব, কারণ অনেকের মত আমিও স্যারের খুব আদরের ছাত্র ছিলাম। পড়াশুনা খুব একটা করতে চাইতাম না। তবোও আমার বাবা (প্রধান শিক্ষক মাস্টার আব্দুস সালাম) আর স্যারের সম্পর্ক ছিল খুব বেশি আপনার। এটাও একটা বড় কারণ ছিল আমাকে আদর করার-কান ধরে শাসন করার। কান ধরে বলতেন বাপের জন্য হলেও পড়াশুনাটা কর। অনেক বার স্যারকে দেখতে যাবো ভেবেছিলাম, কিন্তু যাওয়া হয়নি শেষ পর্যন্ত। গত ২২ নভেম্বর ২০২১ (রবিবার) বিকেল ৫.১৮ মিনিটের সময় চট্টগ্রাম পার্কবিউ বেসরকারি হাসপাতাল থেকেই চলে গেলেন না ফেরার দেশে, আমার-আমাদের প্রিয় গুরু, প্রিয় শিক্ষক, প্রিয় অভিভাবক, মগনামা ফরিদ আহমদ চৌধুরী সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় দীর্ঘ দিনের সাবেক শ্রেষ্ট সহকারী শিক্ষক জনাব আজগর হোসেন স্যার। আল্লাহ স্যারকে জান্নাতি করুন।


স্যারের বাড়ি ছিল চট্টগ্রাম শহরে। তবে গ্রামের বাড়ি ছিল পেকুয়া উপজেলা মগনামা ইউনিয়নের চান্দারপাড়া গ্রামে। শিক্ষক ও সত্যিকারের এক জন অভিভাবক হিসেবে স্যারকে পেয়েছিলাম আমরা মগনামা ফরিদ আহমদ চৌধুরী সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়। মগনামা শিক্ষার মান উন্নয়ন, শৃঙ্খল শিক্ষালয়ের রূপকার হিসেবে তাঁর অবদান অনস্বীকার্য। স্যার ছিলেন, তবে আমরা তাঁর প্রাপ্য সম্মানটুকুনই যথাযথভাবে দিতে পেরেছি বলে মনে হয়না। আজ আমাদের মাঝে স্যার নেই। আছে, স্যারের স্মৃতি, স্যারের শাসন, স্যারের শিক্ষা।


আমরা জানি প্রত্যেক জীবনকেই মৃত্যুকে বরন করতে হবে। এবং মুত্যু চিরন্তন। তবে কিছু মৃত্যুর মৃত্যু হয় না, শুধু দেহটাই হয়তো আড়াল হয়। স্যারের মৃত্যুটাও শুধু দেহ থেকে প্রাণ ত্যাগ করেছে। কিন্তু তাঁর কর্ম, তাঁর শিক্ষা, তাঁর আদর্শ দেশে-বিদেশে, সরকারি-বেসরকারি বিভিন্ন পদে, বিভিন্ন যায়গায় ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা তাঁর ছাত্র-ছাত্রীদের কাছে স্মৃতি হয়ে থাকে-থাকবে। আজগর হোসেরন স্যারও এমনই এক জন। যাঁকে ভালবাসায়, স্মৃতিতে, স্মরণে, আদর্শে ধারন করেই পথ চলছি, চলবো তাঁর গর্বিত ছাত্র হয়ে। স্যার ভাল থাকুন ওপারে। বিনম্র শ্রদ্ধা…

এই পোস্টটি আপনার সামাজিক মিডিয়াতে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই বিভাগের আরও খবর
© ২০২০ সমস্ত অধিকার সংরক্ষিত | দৈনিক জনতার বার্তা বিডি পরিবার
কারিগরি সহায়তায় রাফিউল ইসলাম